বিপিএলের ট্রফি উন্মোচনে ছিলেন না সাকিব

ডেস্ক নিউজ
  • প্রকাশিত সময় : বৃহস্পতিবার, ৫ জানুয়ারী, ২০২৩
  • শেয়ার করুন

  • Facebook

প্রতিবারের মতো এবারও নানা বিতর্ককে সঙ্গী করে আগামীকাল মাঠে গড়াতে যাচ্ছে বিপিএলের নবম আসর। ক্রমাগত নিম্নমুখী বিপিএলের মান এবারও আয়োজিত হচ্ছে অগোছালো ভাবে। এসব বিতর্কের আগুনেই গতকাল ঘি ঢেলেছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।

গতকাল গাল্ফ ওয়েল লিমিটেড এর সিইওর আসনে বসে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে বলেন স্বদিচ্ছা থাকলে মাত্র ২ মাসেই পাল্টে দেয়া সম্ভব বিপিএলের চেহারা। দায়িত্ব পেলে আয়োজন করতে চান বিশ্বমানের বিপিএল। সাকিব বলেন, ” আমাদের ঢাকা প্রিমিয়ার লীগ মেবি এরচেয়ে ভালো ওয়েতে হয়। আমার বেশিদিন লাগবেনা,আমার ধারণা সবকিছু ঠিকঠাক করতে ১-২ মাস লাগবে। এই পুরো সবকিছু বাদ দিয়ে নতুন করে আবার ড্রাফট হবে অকশন হবে, ফ্রি টাইমে বিপিএল হবে। সব আধুনিক টেকনোলজি থাকবে। ব্রডকাস্ট ভালো থাকবে, হোম এবং এওয়ে ভ্যেনু থাকবে”

এছাড়া ডিআরএস প্রসঙ্গে সাকিব বলেন- “আসলে তাদের (বিসিবি) সৎ ইচ্ছে নেই। সৎ ইচ্ছে থাকলে সব সম্ভব৷ কী একটা কথা ডিআরএস নাকি পাচ্ছে না। এটা কেউ বিশ্বাস করবে?(হাসি)। এটা তারা হয়তো বাজেট বাঁচানোর জন্য বাহানা দেয়”

সাকিবের এসব সমালোচনার জবাবে বিপিএলের নির্বাহী কর্মকর্তা নিজাম উদ্দিন বলেন,” বিসিবির সীমাবদ্ধতা জানা থাকলে এভাবে কথা বলতেন না সাকিব”।

এতসব বিতর্কের মাঝেই আজ উন্মোচন হলো নবম আসরের ট্রফি। ট্রফি উন্মোচনে সব দলের অধিনয়াক থাকলেও ছিলেন না ফরচুন বরিশালের অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। তার পরিবর্তে ট্রফি উন্মোচনে অংশ নেন মাহেদী হাসান মিরাজ। এছাড়া উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের অধিনায়ক শুভাগত হোম, ঢাকা ডমিনেটর্সের অধিনায়ক নাসির হোসেন, কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের অধিনায়ক ইমরুল কায়েস, সিলেট স্ট্রাইকার্সের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা, খুলনা টাইগার্সের অধিনায়ক ইয়াসির আলী চৌধুরী ও রংপুর রাইডার্সের অধিনায়ক নুরুল হাসান সোহান।

 

, , ,

মন্তব্য করুন

এই বিভাগের আরো খবর