সরকারের নিয়ন্ত্রণে দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেট

Arfin Rupok
  • প্রকাশিত সময় : শুক্রবার, ১১ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • শেয়ার করুন

  • Facebook

একদিকে করোনায় দিশেহারা ক্রিকেটাঙ্গন, আরেকদিকে হঠাৎ করে ঝড়ো হাওয়ার কবলে দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেট। করোনার প্রভাব কাটিয়ে ইংল্যান্ড যখন রাজত্ব করছে ক্রিকেটে ঠিক তখনি মানসিক লড়াই আর টানাপোড়ন দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেট। কেননা, দক্ষিণ আফ্রিকার সরকার দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেটের (সিএসএ) সব কার্যক্রম স্থগিত করেছে।

দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেটে বেশকিছু দিন থেকেই ঝড়ো বাতাস বইছে। গত মাসে সিএসএর চেয়ারম্যান পদত্যাগ ঘোষণা করার পর প্রধান নির্বাহীকে বহিস্কার করেন বোর্ড। এরপর ঢেলে সাজানোর কথা ছিলো সবকিছু। কিন্তু, হঠাৎ করেই দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেটের সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণ চলে গেছে সরকারের হাতে।

দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রীড়া কনফেডারেশন এবং অলিম্পিক কমিটি এক চিঠিতে উল্লেখ করেছেন, সিএসএর বোর্ড সদস্য ও ঊর্ধ্বতন কর্তাদের তাদের পদ থেকে ছাঁটাই করা হয়েছে। গত ডিসেম্বর থেকে বোর্ডের কর্তাদের ‘ক্ষমতা ও পদের অপব্যবহারের’ জেরেই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।

ক্রিকেটে সরকারের হস্তক্ষেপের কারণে নিষেধাজ্ঞায় পড়তে পারে দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট। আইসিসির নিয়ম অনুযায়ী, কোনো দেশের ক্রিকেটে সরকারের হস্তক্ষেপ বা প্রভাব থাকবে না। অথচ, এই নিয়মকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকান সরকার ক্রিকেট বোর্ডকে অকার্যকর করার ঘোষণা দিয়েছে।

দক্ষিণ আফ্রিকার বিষয়ে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত নেননি আইসিসি। যদিও এর আগে দেশের ক্রিকেটে সরকারের হস্তক্ষেপের কারণে আইসিসির নিষেধাজ্ঞায় পড়েছিলো জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট। এখন দেখার বিষয়, দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেটে কি ঘটতে যাচ্ছে!

 

,

মন্তব্য করুন

এই বিভাগের আরো খবর